১৫ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৩০শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার, দুপুর ১২:৩২

সেই কারখানায় এসে পালালো এ্যানি চৌধুরী

সংবাদচর্চা রিপোর্ট:

রূপগঞ্জে অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্ত হাসেম ফুড এন্ড বেভারেজ কারখানা (সেজান জুস) পরিদর্শনে এসে রূপগঞ্জ থেকে পালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে বিএনপির কেন্দ্রীয় প্রচার সম্পাদক ও সাবেক এমপি শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানির বিরুদ্ধে। স্থানীয় বিএনপির দুই গ্রুপের সংঘর্ষ চলাকালে মঙ্গলবার ১৩ জুলাই সে পালিয়ে যায়।

সংবাদচর্চাকে এ তথ্য নিশ্চিত করে তারাব পৌর বিএনপির এক নেতা বলেন, শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানিকে রিসিভ করে সেজান জুস কারখানায় নিয়ে যায় মোস্তাফিজুর রহমান দীপু ভুঁইয়া। কেন্দ্রীয় নেতাদের সামনে দীপু ভুঁইয়া ধাক্কা দেয় তারাব পৌর বিএনপির সভাপতি নাসির উদ্দিনকে। নাসির উদ্দিনের সমর্থকরা দিপু এবং তার সমর্থকদের ধাওয়া করে । এসময় দিপুর ৪/৫ জন সমর্থককে পিটিয়ে আহত করে। সংঘর্ষ দেখে শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানিসহ বিএনপির কয়েকজন নেতা পালিয়ে যায়। এসময় দফায় দফায় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও ইট পাটকেল নিক্ষেপের ঘটনা ঘটে।

প্রসঙ্গত, গত ৮ জুলাই বিকেল সাড়ে ৫টার পর সজীব গ্রুপের অঙ্গপ্রতিষ্ঠান হাসেম ফুড অ্যান্ড বেভারেজের ফুডস ( সেজান জুস নামে পরিচিত ) কারখানাটিতে আগুন লাগে। এতে ৫২ জন নিহত হয়। কারখানাটিতে পরিদর্শনে এসে বিএনপি নেতাদের এমন কর্মকান্ডে হতাশ সচেতন মহল।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ