১২ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৭শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার, রাত ১১:৪৯

বিএনপির সহ-আন্তর্জাতিক সম্পাদকের ভাই মুদ্রাসহ আটক

সংবাদচর্চা রিপোর্ট: বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নজরুল ইসলাম আজাদের ভাই রাকিবুল ইসলামকে চট্টগ্রাম শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ৪২ লাখ টাকা সমমূল্যের বিভিন্ন দেশের মুদ্রাসহ আটক করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) রাতে বিমানবন্দর কাস্টমস ইমিগ্রেশনের পর ফাইনাল চেকিংয়ের সময় তাকে আটক করে। আটক রাকিবুল আড়াইহাজারের পাঁচরুখী ভুঁইয়াপাড়া এলাকার মোস্তাফিজুর রহমানের ছেলে ।
বিমানবন্দর কাস্টমসের সহকারী কমিশনার মো. মুসা খান জানান, দুবাইগামী বিমানের যাত্রী ছিলেন রাফিকুল। বিমানবন্দরে লাগেজ তল্লাশির সময় তার ব্রিফকেসে ৩৩ হাজার ৯০০ ইউএস ডলার ও ৪২ হাজার ইউএই দিরহাম পাওয়া গেছে। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার মূল্য ৪২ লাখ টাকা।
গতকাল তার বিরুদ্ধে পতেঙ্গা থানায় মানি লন্ডারিংয়ের মামলা দায়ের করা হয়েছে। মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে পতেঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ জোবাইর সৈয়দ বলেন, মুদ্রা পাচার আইনে তার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে কাস্টমস। বুধবার তাকে আদালতে পাঠানো হয়। জানা গেছে আদালত তাকে কারাগারে পাঠিয়েছে।
এদিকে বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নজরুল ইসলাম আজাদের ভাই বিদেশী মুদ্রাসহ আটকের পর আড়াইহাজার নানা আলোচনা সমালোচনা শুরু হয়েছে। আওয়ামীপন্থীরা প্রশাসনের কাছে নজরুল ইসলাম আজাদের উপর নজরদারি বৃদ্ধির দাবি জানিয়েছেন। যেহেতু তিনি দলটির সহ আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক বিদেশে বিএনপির নেতাদের সাথে তার যোগাযোগ রয়েছে। তাদের অভিযোগ নজরুল ইসলাম আজাদ বিভিন্ন কৌশলে বিদেশে তারেক রহমানসহ বিএনপির পলাতক নেতাদের কাছে টাকা পাঠাচ্ছে। তাছাড়া জোট সরকারের আমলে নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন শিল্পকারখানা তারেক রহমান নিয়ন্ত্রণ করেছে। সেই কারখানাগুলোতে এখনো তার প্রভাব রয়েছে বলে একটি সুত্র জানিয়েছে। সুত্রটি আরো জানায় তারেক রহমান ও আরাফাত রহমান কোকোর স্ত্রীর বিভিন্ন কাজ করে দেয় নজরুল ইসলাম আজাদ।

 

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ