১৩ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার, রাত ৩:৫৪

না.গঞ্জে হাটের সিডিউল নিয়ে মারামারি

সংবাদচর্চা অনলাইনঃ

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলায় গরুর হাটের সিডিউল ক্রয় নিয়ে দুই গ্রুপের মাঝে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। রোববার সকালে নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদ কার্যালয় এ ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, কাশিপুর সম্রাট, নূর হোসেন বাহিনী এবং পাইক পাড়া আকতার ও মনির বাহিনীর মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। পুরান গোগনগর সৈয়দপুর পাঠান নগর হাটের সিডিউল নিয়ে তাদের মাঝে ঝগরা হয়। দু গ্রপই কেউ কাউকে এ হাটের সিডিউল কিনতে না দেয়ার জন্য ঝগরা তর্কবিতর্ক করেন। এক পর্যায়ে তাদের মাঝে ঘুষা ঘুষি শুরু হয়ে যায়। এবং পরিস্থিতি গরম হয়ে যায়। তখন সদর উপজেলার মনিরুল গরুর হাটের সিডিউল বিক্রয় বন্ধ করে দেন।

এদিকে কয়েকজন সচেতন মহলের লোকজন বলছেন, সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা তখন ঘটনা স্থলে না থাকায় এমন ঘটনা ঘটেছে। এটা ইউএনওর এক ধরনের ব্যর্থতার পরিচয় বলে তারা জানান। সকাল ৯ টা হতে সিডিউল বিক্রির কথা থাকলেও বেলা সাড়ে ১২টায় সিডিউল বিক্রি শুরু করতে পারে নাই। ইউএনও নাহিদা বারিক বেলা ১২ টায় অফিসে আসেন। পরে পুলিশ আসলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

তবে সিডিউল কিনতে আসা কয়েক জন নাম প্রকাশ না করে বলেন, সকাল ৯ টায় সিডিউল বিক্রির কথা অথচ ইউএনও আসছেন ১২ টায়। ফলে সদর উপজেলার সিডিউল কিনতে ভিড় জমাচ্ছে। কে কার আগে নেবে সেজন্যই দু’পক্ষের মধ্যে এ হাতাহাতির ঘটনা।

এ ব্যাপারে ইউএনও অফিসের মনির হোসেন বলেন,নিয়ম অনুযায়ী ডিসি ও এসিল্যান্ড অফিসে ৩ টি করে সিডিউল থাকবে। ইউএনও অফিসে অগনিত থাকবে। সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদা বারিক সাংবাদিকদের বলেন, এখানে নিউজ করার মতো কিছু ঘটে নাই। আপনারা সবাই চলে যান।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ