১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৯শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার, সকাল ৯:৩১

হয় পুলিশ থাকবে, না হয় সন্ত্রাসী : এসপি

সংবাদচর্চা রিপোর্ট:

নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার মো: জায়েদুল আলম বলেছেন, কায়েতপাড়ায় আমি নিজে থাকবো। নাওড়া , চনপাড়ায় হয় পুলিশ থাকবে না হয় সন্ত্রাসীরা থাকবে। প্রয়োজনে নাওড়াতে আরও পুলিশ বাড়াবো । ভোট ভোটের মতো করবো। কায়েতপাড়ায় নির্বাচন শতভাগ সুষ্ঠু এবং নিরপেক্ষ হবে।

প্রার্থীদের উদ্দেশে এসপি বলেন, আজকের পর থেকে আপনারা এলাকায় বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করবেন না। আপনারা যদি আমাদেরকে অশান্তি দেন, তাহলে আমরা আপনাদেরকে ঘরে থাকতে দেবো না। মোটরসাইকেলে আজ থেকে ২জনের বেশি উঠবেন না। যে মোটরসাইকেলে ৩ জন থাকবে সেই মোটরসাইকেল রূপগঞ্জে নয় নারায়ণগঞ্জে থাকবে। সবাই নির্বাচনের আচরণ বিধি মেনে চলবেন। চনপাড়ায় পুলিশ বাড়ানো হচ্ছে।প্রত্যেকটা র‌্যাব-বিজিবিসহ প্রশাসন মাঠে আছে।

বুধবার ( ৩ নভেম্বর) দুপুরে রূপগঞ্জ উপজেলা পরিষদে ইউপি নির্বাচনের প্রার্থীদের সাথে মতবিনিময় সভায় জেলা পুলিশ সুপার এসব কথা বলেন।
এসময় নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহ, রূপগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহ্ নুসরাত জাহান, রূপগঞ্জ থানার ওসি সায়েদসহ প্রার্থীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য আগামী ১১ নভেম্বর কায়েতপাড়া,ভোলাব, ভুলতা, গোলাকান্দাইল, মুড়াপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের ভোট গ্রহণ।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ