১২ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৮শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার, রাত ৮:০২

চৌষট্টিতে মাহবুবুর রহমান মাসুম

সংবাদচর্চা অনলাইনঃ

নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সভাপতি, দৈনিক খবরের পাতা পত্রিকার সম্পাদক ও বিশিষ্ট আইনজীবী মাহবুবুর রহমান মাসুমের ৬৩তম জন্মবার্ষিকী আজ। ১৯৫৭ খ্রিস্টাব্দের ২১ জুলাই তিনি নারায়ণগঞ্জ জেলার বন্দরের মাহমুদনগরে জন্মগ্রহণ করেন। পিতা মরহুম আবু বকর সিদ্দিক নারায়ণগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির প্রতিষ্ঠাতা সদস্য ছিলেন। বড় ভাই শহীদ বাঙ্গালী একজন সফল ব্যবসায়ী ও শিক্ষানুরাগী। ব্যক্তিগত জীবনে দুই মেয়ে ও এক ছেলে এবং স্ত্রী নিয়ে শহরের আলম খান লেনস্থ নিজ বাসভবনে পারিবারিক সুখী জীবনযাপন করছেন।

মাহবুবুর রহমান মাসুম দীর্ঘ ৪০ বৎসর সাংবাদিকতায়। ২৮ বছর নারায়ণগঞ্জ থেকে প্রকাশিত সাপ্তাহিক তৎপরবর্তী দৈনিক খবরের পাতা পত্রিকার প্রকাশক ও সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। এর আগে দৈনিক পত্রিকা, দৈনিক আজকের কাগজ ও দৈনিক ভোরের নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করেছেন। নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবে ২০০২-২০০৪, ২০১৬-১৮, ২০১৮-২০ কার্যবৎসরে তিনবার সভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হয়ে দায়িত্ব পালন করছেন। এছাড়াও তিনি প্রেস ক্লাবের বিভিন্ন মেয়াদে কার্যকরী কমিটির নির্বাহী সদস্য থেকে ক্লাবের গুরুত্বপূর্ণ কাজে ভূমিকা রেখেছেন।

মাহবুবুর রহমান মাসুম একজন সিনিয়র আইনজীবী হিসেবে এখনও দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি বাংলাদেশ গণতান্ত্রিক আইনজীবী সমিতির কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ও জেলা সিনিয়র সহসভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। স্কাউটের প্রতি তিনি ছিলেন অত্যন্ত দুর্বল। ১৯৮৬ সালে স্থানীয় স্কাউটের সম্পাদক এবং ৯ বৎসর উপজেলা স্কাউটের কমিশনার পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। বর্তমানে তিনি জেলা স্কাউটের সহসভাপতি, ঢাকা আঞ্চলিক ডিআরএস পদে দায়িত্ব পালন করেছেন।

মাহবুবুর রহমান মাসুম ১৯৭৯ সালে নারায়ণগঞ্জ সরকারি তোলারাম কলেজ থেকে স্নাতক ডিগ্রী লাভ করার পর ১৯৮১ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে জগন্নাথ বিশ^বিদ্যালয় থেকে রাষ্ট্রবিজ্ঞানে মাস্টার্স ডিগ্রী লাভ করেন। তিনি ছাত্রজীবন থেকেই তুখোর ছাত্রনেতা হিসেবে পরিচিত ছিলেন। ১৯৭৮ সালে তোলারাম কলেজকে সরকারি করণের দাবিতে তিনিসহ অন্যান্য ছাত্রনেতারা তৎকালীন রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের গাড়ি ঘেরাও করে এবং জনসভায় তোলারাম কলেজকে সরকারিকরণের ঘোষণা না দিলে গাড়ির সামনে রাস্তায় শুয়ে পড়েন যার জন্য তিনিসহ অনেকে সে সময়ে নির্যাতনের শিকার হন। এছাড়া তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী স্বাধীনতাবিরোধী রাজাকার শাহ্ আজিজকে তোলারাম কলেজের অডিটোরিয়াম উদ্বোধনের প্রধান অতিথি করা হলে তিনি অন্যান্য ছাত্রদের নিয়ে এর বিরুদ্ধে কঠোর আন্দোলনে বলিষ্ঠ ভূমিকা পালন করেন। নারায়ণগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

রাজনীতির পাশাপাশি খেলাধুলায় ও শিক্ষা ক্ষেত্রেও তার প্রবল বিচরণ ছিল। তিনি একেধারে ১৬ বৎসর পর্যন্ত নারায়ণগঞ্জ জেলা ক্রীড়া সংস্থার কার্যকরী কমিটির সদস্য পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। জেলার প্রথম বিভাগ ফুটবল লীগের অন্যতম ফুটবল দল নিতাইগঞ্জ ক্রীড়া চক্রের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি নারায়ণগঞ্জ আদর্শ বালিকা বিদ্যালয়ের কলেজ শাখার অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন। তিনি নারায়ণগঞ্জ জেলা বাস্তবায়ন কমিটির আহবায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশনের ঢাকা বিভাগীয় দক্ষিণের সমন্বয়কারী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। রাজনীতিতে তিনি নারায়ণগঞ্জ জেলা জাসদের (ইনু) সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। তিনি নারায়ণগঞ্জ জেলা আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভাসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে মানুষের ন্যায় অধিকার লক্ষ্যে নির্ভিক বক্তব্য রাখেন।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ