১৬ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১লা অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার, রাত ১:৩৩

গাছ চোরদের হামলা

অ.শুভঃ

শহরের চাঁনমারি এলাকা থেকে খানপুর তল্লা পর্যন্ত প্রায় ১ কিলোমিটার এলাকার গাছ কেটে বিক্রি করে দিয়েছে প্রভাবশালীরা। প্রায় ৯১ টি গাছ কয়েক লক্ষ টাকা বিক্রি করে দেয়ার অভিযোগ রয়েছে স্থানীয় কাউন্সিলের সহযোগীসহ আরও কয়েকজনের বিরুদ্ধে। এদিকে গাছ কাটার ঘটনা তদন্ত করতে যাওয়া নারায়ণগঞ্জ বন সংরক্ষন বিভাগের কর্মকর্তাদের উপর হামলার চেষ্টা হয়েছে। এ ঘটনা তদন্ত কমিটি গঠন করেছে জেলা প্রশাসন।

সূত্রে জানা গেছে, শহরের খানপুর রেললাইন এলাকায় গঞ্জে আলী খাল সংস্কার করছে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন। খালের পাশেই সরকারি জমিতে গত ২০ বছর ধরে বেড়ে উঠেছে কড়ই, শিমুল, চাম্বল, শিল, খেজুর, সুপারিসহ নানা প্রজাতির গাছ। সম্প্রতি, সেই গাছ কেটে বিক্রি করে দিয়েছে সংঘবদ্ধ একটি চক্র।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, খানপুর এলাকার অনেকেই গাছ কাটার সময় কাউন্সিলরের সহযোগী নবীকে দেখেছে। কয়েকটি স্থানে মিলিয়ে ৯১টি কাটা গাছ গুনতে দেখেছেন প্রত্যক্ষদর্শীরা। গাছ কেটে কয়েক লক্ষ টাকা বিক্রি করা হয়েছে। সেই টাকার ভাগ ৫ শ’ টাকা থেকে ৫ হাজার টাকা পর্যন্ত দেয়া হয়েছে এলাকার অনেকে। প্রত্যাক্ষদর্শীরা বলেন, চাঁনমারির মাউরাপট্টি এলাকার গাছ কাটার সাথে জড়িত দাউদের ভাই মজিদ, শরীফ, খোরশেদ, ইমোসহ আরও কয়েকজন।

তবে অভিযোগ অস্বিকার করে ১২ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর শওকত হাশেম শকু’র সহযোগী নবী জানান, কোন গাছ কাটা হয়নি। পরে তিনি বলেন, এ ব্যাপারে বন সংরক্ষনের কর্মকর্তা এসেছিলো। তারা দেখে গেছে। আমরা সিটি কর্পোরেশনের খাল পরিস্কারের কাজ করছি ।

এ বিষয়ে নারায়ণগঞ্জ বন সংরক্ষন কর্মকর্তা শারমীন আক্তার দৈনিক সংবাদচর্চাকে জানান, বন বিভাগের কর্মকর্তরা গাছের হিসাব নেয়ার জন্য তদন্ত করতে ঘটনাস্থলে গিয়েছিলো। বড় বড় ১৪টি গাছ কাটার হিসাব গুনে সামনে যাওয়ার সময় বন বিভাগের কর্মকর্তাদের উপর হামলার চেষ্টা করে অনেকে। বন সংরক্ষন কর্মকর্তা আরও বলেন, গাছ কাটার ঘটনায় সহকারী কমিশনার (ভূমি) কে প্রধান করে ৩ বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি করেছে জেলা প্রশাসন। এই কমিটির সার্বিক দিক নির্দেশনা দিবেন সদর উপজেলার নিবার্হী কর্তকর্তা নাহিদা বারিক। তিনি আরও বলেন, গাছ কাটার বিষয়ে কেউ কোন অনুমতি নেয়নি বন বিভাগ থেকে। নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন থেকেও এ বিষয়ে জানানো হয়নি। গাছ কাটার ঘটনার সাথে জড়িদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান বন কর্মকর্তা।

নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের নগর পরিকল্পনাবিদ মাঈনুল ইসলাম জানান, গাছ কাটার বিষয়ে আমরা কিছুই জানি না। নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন গঞ্জে আলী খাল উদ্ধার করেছে। খাল চারপাশে গাছ কাটার লাগানোর ব্যবস্থা করা হবে। যাতে করে মানুষ হাটাচলা করতে পারে এবং খাল সংস্কার করে এলাকার জলবদ্ধতা নিরসন করা হবে।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ