১৩ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার, রাত ১২:৪৬

কবে থেকে চলবে না.গঞ্জে ট্রেন

নাদিম হাসানঃ

মহামারি করোনার প্রভাবে বদলে গেছে শহরের রেল স্টেশনের চিত্র। আগে যেখানে সারাক্ষন ছিল অপেক্ষারত মানুষের ভিড় এবং ট্রেনের আসন বরাদ্দের জন্য হুড়োহুড়ি সেখানে এখন নীরব-নিস্তব্ধ। শনিবার নারায়ণগঞ্জ রেল স্টেশনে গিয়ে দেখা গেছে এমন দৃশ্য। আশপাশের দোকানদাররা জানান, মাঝে মধ্যে কেউ কেউ জানতে আসে, ‘কবে থেকে চলবে ট্রেন’। স্টেশন মাস্টার জানিয়েছেন, ১ তারিখের পর সিদ্ধান্ত।

গত ২৪ মার্চ বিকেল থেকে দেশের সব রুটে ট্রেন চলাচল বন্ধ করেছে রেলপথ মন্ত্রণালয়। এর পর থেকে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ রেল যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। তবে এখন সীমিতভাবে দূরপাল্লার রেল চলাচল শুরু হলেও নারায়ণগঞ্জ টু কমলাপুর ট্রেন কবেনাগাদ চালু হবে তা অনিশ্চিত।

সরেজমিনে দেখা যায়, ট্রেনের অপেক্ষায় আর যাত্রী বসে থাকে না স্টেশনে। চায়ের দোকানগুলেতে নেই আগের সেই জৌলুস কিন্তু কয়েক মাস আগেও এই স্টেশন চত্বরের ছোট ছোট টি-স্টলগুলেতে থাকতো লোকে লোকারণ্য। চলতো রাজনীতি সহ নানা বিষয়ে বিশ্লেষণ । তবে এখন আর স্টলগুলোতে চায়ের কাপে ঝড় ওঠে না তেমন। কেউ কেউ মাঝে মধ্যেই যান খবর নিতে ট্রেন আবার কবে চালু হবে।

স্টেশনের ভেতরে থাকা এক চায়ের দোকানি জানান, অনেক বছর ধরে স্টেশনে চা বিক্রি করছি এছাড়া এই স্টেশনে যাতায়াত করছি প্রায় ৩০ বছরের ওপরে। কিন্তু কোনো সময় এমন অবস্থা দেখি নাই। কয়েক মাস আগের স্টেশনের কথা চিন্তা করলে অবাক লাগে। একটি অদৃশ্য ভাইরাস গোটা স্টেশন প্রায় জনশূন্য করে দিয়েছে। আল্লাহ জানে আগামীতে কি হবে।

ট্রেনের নিয়মিত যাত্রী এনামুল বলেন, শহরে সকল সরকারি বেসরকারি অফিস খুলে দেওয়া হয়েছে। বাস ট্রাক চলাচল করছে সাভাবিক সময়ের মতই। কিন্তু এখনও কেন চালু হচ্ছে না ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ ট্রেন । ট্রেন বন্ধ থাকায় কর্মস্থলে আসার জন্য বেশি ভাড়া গুণতে হচ্ছে। যা আর্থিক চাপেরও কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

নারায়ণগঞ্জ রেলস্টেশন মাস্টার গোলাম মোস্তফা জানান, আগামী ১ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। এরপর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা আলোচনা করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নিবে।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ