আজ মঙ্গলবার, ১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৯শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

ইসলামী আন্দোলন ফতুল্লা থানার সম্মেলন অনুষ্ঠিত

সংবাদচর্চা অনলাইনঃ

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ফতুল্লা থানা শাখার দ্বিবার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার (২৯ জানুয়ারি) সকাল ৯টার দিকে ফতুল্লার পাগলা বাজার এলাকায় সংগঠনের কার্যালয়ে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার সভাপতি মাওলানা আনোয়ার হোসেন জিহাদী। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার প্রচার ও দাওয়াহ সম্পাদক  ফারুক আহমেদ মুন্সি।

এতে আগামী ২ বছরের জন্য নতুন কমিটির সভাপতি ও সেক্রেটারির নাম ঘোষণা করা হয়। তারা হলেন সভাপতি মুহাম্মাদ শফিকুল ইসলাম ও সেক্রেটারি আলহাজ্ব আমান উল্লাহ।

মাওলানা আনোয়ার হোসেন জিহাদী বলেন, ’৭১ সালের আগে এ দেশে যে জুলুম নির্যাতন হতো বর্তমানে তার চেয়ে তিনগুণ বেশি হচ্ছে। ’৭০ এর সাধারণ নিবার্চনে যেমন তৎকালীন পাকিস্তানি সরকার ক্ষমতা হস্তান্তর করতে চাননি; ঠিক বর্তমান ভোটবিহীন সরকার, জনবিচ্ছিন সরকার জয়লাভ তো দূরের কথা নির্লজ্জভাবে হারের ভয়ে মানুষের ভোটারাধিকার কেড়ে নিয়ে নিজেরাই ভোট দিয়ে নিজেদের বিজয় হিসেবে ঘোষণা করছে। এমন নির্লজ্জ সরকার পৃথিবীতে মানুষ এর আগে দেখেছে কিনা আমার জানা নেই।

তিনি আরও বলেন সরকার দুর্নীতি করছে আর দুর্নীতির বৈধতার সার্টিফিকেট দিচ্ছে দুর্নীতিবাজ নির্বাচন কমিশন, প্রশাসন ও দুর্নীতি দমন কমিশন নামের জঘন্য দেশ বিরোধী মানুষ গুলো। তিনি দুর্নীতিবাজদের রুখে দেয়ার জন্য সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান।

তিনি আরও বলেন, গত ২৭ জানুয়ারী চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সরকারি সন্ত্রাসী বাহিনী যে নৈরাজ্য চালিয়েছেন তা খুবই দুঃখজনক। বিরোধী দলের এজেন্টদের বের করে দেয়া, জাল ভোট দেয়াসহ নানা অপরাধের পুনরাবৃত্তি হলো। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে চারটি পারিবারের চারজন মানুষ নিহত হলো। অথচ নির্বাচন কমিশন বললো সুষ্ঠু ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন হয়েছে। খুবই লজ্জাজনক অধ্যায় রচিত হলো। তিনি এর সুষ্ঠু বিচার দাবি করেন। এবং নির্বাচনের ফল বাতিল করে পুনরায় নির্বাচন দেয়ার আহ্বান জানান।

মুহাম্মদ শফিকুল ইসলাম বলেন, বর্তমানে দুর্নীতি মহামারী নয় এ যেন নিত্যনৈমিত্তিক কাজের রুটিনে পরিণত হয়েছে। আদর্শবান দায়িত্বশীল ও কর্মী ব্যতীত দেশে কখনোই শান্তি কামনা করা যায় না। তাই তিনি কর্মীদের সততার মাধ্যমে সমাজে শান্তি ও ইসলাম প্রতিষ্ঠার কাজে আরো মনোযোগী হওয়ার আহ্বান জানান।

এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন,  ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ফতুল্লা থানা শাখার সহ-সভাপতি মুহাম্মদ ওমর ফারুক, জাহাঙ্গীর কবির, যয়েন্ট সেক্রেটারি শাহ জাহান বেপারী, সাংগঠনিক সম্পাদক জোবায়ের হোসাইন, মুফতী ইমরান, মাওলানা মামুনুর রশীদ, মাওলানা মুহাম্মদ আব্দুর রশীদ, ছাত্র আন্দোলন ফতুল্লা থানা শাখার সভাপতি সাইফুল ইসলাম, জাহিদ, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলন, জাতীয় শিক্ষক ফোরাম, যুব আন্দোলন, ওলামা মশায়েখ আইম্মা পরিষদের নেতৃবৃন্দ।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ