আজ মঙ্গলবার, ১১ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২৫শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

সবার জন্য আমার দরজা খোলা: দাউদপুরে মন্ত্রী গাজী

সংবাদচর্চা রিপোর্ট:
দুয়ারে কড়া নাড়ছে জাতীয় নির্বাচন। ভোট কেন্দ্র পরিচালনা কমিটি গঠন করছেন রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ,বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক ,এমপি। গত ২৪ ফেব্রুয়ারি তিনি দাউদপুরে নৌকা মার্কায় ভোট চেয়ে গণসংযোগ করেন এবং দলীয় নেতাদেরকে ভোট কেন্দ্র কমিটি গঠন করার নির্দেশ দেন। সুত্রের খবর আগামী নির্বাচনে রূপগঞ্জ আসনে তিনি নৌকার প্রার্থী। এর আগে তিনি একই আসন থেকে হ্যাট্টিক বিজয় অর্জন করেন।

গতকাল রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি , বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক বলেন, আমি বার বার আসবো। আমি রূপগঞ্জ ছেড়ে কোথাও যায়নি। আমাদের সাথে যারা নমিনেশনের জন্য ফাইট করছে আজ না হয় কাল ঠিক হয়ে যাবে। বিএনপির বিরুদ্ধে আমাদের লড়তে হবে। বিএনপি আমাদের শত্রু।

দাউদপুরবাসীর উদ্দেশে বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক বলেন, আমি চেয়েছি আপনাদের উন্নয়ন। আমার চেষ্টা থাকবে আপনাদের উন্নয়ন করার। আপনার নৌকা মার্কায় আমাকে ভোট দিয়ে বিজয়ী করেছেন। এখন আপনাদের হক আদায় করা আমার কর্তব্য। আমি সব সময় আপনাদের উন্নয়নের কথা চিন্তা করি। আপনারা উন্নয়ন দেখে ভোট দেবেন। আমি যদি উন্নয়ন না করি ভোট আমি চাই না, আর যদি আমি উন্নয়ন করে থাকি তাহলে আপনারা আমাকে নৌকা মার্কায় ভোট দেবেন। এই নৌকা শেখ হাসিনার মার্কা। আমি যা কিছু করি আমাদের নেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা অনুযায়ী কাজ করি। তিনি রূপগঞ্জে এ যাবতকালের সেরা উন্নয়ন করেছেন। গরীব ,বড়লোক কিচ্ছু বুঝিনা আপনাদের সবার জন্য আমার বাসা খোলা আছে। সবাই যাবেন আমার বাসায়। বুধবার থেকে ৪ দিন আমি রূপসীর বাসায় থাকি। আপনাদের সবার জন্য আমার রূপসীর বাসার দরজা খোঁলা আছে, এছাড়া আমার ঢাকার বাসায়ও আপনাদের জন্য আমার দরজা খোলা আছে। এমপি হওয়ার পর থেকে আমি কোনদিন ঢাকায় ঈদ উদযাপন করি নাই। আপনারা যারা ভোট দিয়ে আমাকে এমপি নির্বাচিত করেছেন তাদের প্রতি আমি কৃতজ্ঞ। আমি আপনাদের সঙ্গে আছি। আপনাদের উন্নয়ন এবং সমস্যা সমাধানের চেষ্টা করছি। যতদিন আমি বেচে থাকবো ততদিন আমি আপনাদের কাজ করে যাবো। আপনাদের কি লাগবে আমাকে জানাবেন।
দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক বলেন, আপনারা জনগণের কাছে যাবেন। কেন্দ্র কমিটি করতে হবে। আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দসহ এলাকায় আমাদের গুরুজন যারা আছেন সবাইকে নিয়ে কেন্দ্র কমিটি করতে হবে। আমাদের বাড়িতে বসে থাকা যাবে না। আওয়ামী লীগ জনগণের সাথে আছে। যারা পাটি করে না তাদেরকেও ভোট কেন্দ্র কমিটিতে রাখতে হবে।
বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী আরও বলেন, জনগণকে ভালোবাসতে হবে। জনগণের কাছে যেতে হবে। কার কি সমস্যা আছে জানতে হবে। বিএনপির বিরুদ্ধে আমাদের লড়তে হবে। ক্ষমতায় থেকে তারা কি কাজ করেছে? কোন কাজ তাদের দ্বারা হয়নি। যা কিছু উন্নয়ন করেছে এই আওয়ামী লীগ সরকার,শেখ হাসিনার সরকার করেছে।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন মোল্লা, ত্রান ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক সৈয়দ মারফত আলী, যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির জনশক্তি ও কর্মসংস্থান বিষয়ক সম্পাদক শাহিন মালুম, দাউদপুর ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি রফিকসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ