আজ শুক্রবার, ১৩ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৭শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

‘শিক্ষা ব্যবস্থায় নজিরবিহীন সাফল্য এনেছে আওয়ামী লীগ ’

সংবাদচর্চা রিপোর্ট:

বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক বলেছেন, “প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শিক্ষাবান্ধব প্রধানমন্ত্রী। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতা গ্রহণের পর থেকে বর্তমান সময় পর্যন্ত শিক্ষা ব্যবস্থায় নজিরবিহীন সাফল্য এনেছে। বছরের প্রথম দিনে সকল প্রাইমারি, মাধ্যমিক স্কুল ও মাদ্রাসায় বিনামূল্যে বই বিতরণ সারা বিশ্বে একটি নজিরবিহীন ঘটনা। সরকার দেশের প্রায় সব প্রাথমিক বিদ্যালয়কে সরকারিকরণ করেছে। ২৪ হাজার স্কুল-কলেজ-মাদ্রাসায় ল্যাপটপ ও মাল্টিমিডিয়া ক্লাসরুম তৈরি করে দেয়া হয়েছে। সব শিক্ষাস্তরে তথ্যপ্রযুক্তিকে আলাদা বিষয় হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। ছাত্রীদের জন্য প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা তহবিল গঠন করে স্নাতক পর্যন্ত উপবৃত্তির আওতায় আনা হয়েছে। উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রে এসেছে পরিবর্তন। সর্বোপরি, বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা দেশের প্রধানমন্ত্রী বলেই শিক্ষার্থীরা এখন বছরের প্রথম দিনেই বিনামূল্যে নতুন বই হাতে পেয়ে যাচ্ছে। তাই শিক্ষার্থীদের উচিত হবে প্রধানমন্ত্রীর ভিশন ২০৪১ বাস্তবায়নে নিজেদের উপযুক্ত করে তৈরি করা। সরকারের উন্নয়নের এই ধারাকে অব্যাহত রাখতে আমাদের সবাইকে সচেতন হতে হবে এবং হাতে হাত রেখে কাজ করে যেতে হবে।”

সোমবার (২ জানুয়ারী) দুপুরে রূপগঞ্জ উপজেলার খাদুন এলাকায় হাজী আয়েত আলী ভুঁইয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে নতুন চার তলা বিশিষ্ট একাডেমিক ভবনের উদ্বোধন উপলক্ষে আলোচনা সভা ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।
শিক্ষা ক্ষেত্রে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অবদানের কথা উল্লেখ করে বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক আরও বলেন, ” প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দায়িত্বে আসার পর থেকে শিক্ষাকে যেভাবে এগিয়ে নিয়ে গেছেন, সেটা বাংলাদেশের ইতিহাসে আর হয়নি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতায় এসে শিক্ষা সম্প্রসারণে নানামুখী পদক্ষেপ নিয়েছেন। এটার গতিও এখন অনেক বেশি।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন, জিটিভি’র চেয়ারম্যান ও হাজী আয়েত আলী ভুঁইয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি গাজী গোলাম আসরিয়া। তিনি বলেন, “একটি দেশ ও জাতির উন্নয়নে শিক্ষার বিকল্প নাই। শিক্ষা ছাড়া কোন জাতি উন্নতির চরম শেখড়ে উত্তির্ণ হওয়া সম্ভব নয়। তাই শিক্ষার্থীদেরকে সুশিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে দেশ ও জাতির উন্নয়নে ভূমিকা রাখতে হবে। জাতি শিক্ষিত হলেই দেশ এগিয়ে যাবে। দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন হবে। অভিভাবকদের খেয়াল রাখতে হবে যেন তাদের সন্তানরা বিপথে চলে না যায়।”
এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের উপসহকারী প্রকৌশলী কে এম মুস্তাফিজুর রহমান, রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যকরী সদস্য আমজাদ হোসেন ভুঁইয়া, উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যকরী সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব, হাজী আয়েত আলী ভুঁইয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির দাতা সদস্য মঞ্জুরুল হক ভুঁইয়া, হাজী আয়েত আলী ভুঁইয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হোসনে আরা পারভীন, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি আব্দুল আউয়াল মোল্লা, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতির সাধারন সম্পাদক নারায়ণ চন্দ্র সাহা, তারাবো পৌরসভার কাউন্সিলর মোহাম্মদ হামিদুল্লাহ, তারাবো পৌরসভা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মতিন সাউদ, হাজী আয়েত আলী ভুঁইয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সদস্য আল ইসলাম, বাবুল মিয়া, মাকসুদুল হোসেন তুষার, নুরুল আমীন, আসমা আক্তার, সাইফুল ইসলাম বিপ্লব সহ অনেকে।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ