আজ বুধবার, ১৩ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

‘মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিলের নির্বাচন চাই’

সংবাদচর্চা রিপোর্ট

রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ,বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক বলেছেন, আমরা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিলের নির্বাচন চাই। মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রীর কাছে আমরা যাবো। আমরা বীর মুক্তিযোদ্ধারা একুশ বছর মামলা ,হামলার শিকার হয়েছি। বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে আমরা এ দেশ স্বাধীন করেছি। বঙ্গবন্ধুর কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা মুক্তিযোদ্ধাদের রক্ষা করেছেন। তিনি মুক্তিযোদ্ধাদের অনেক সুযোগ-সুবিধা দিয়ে যাচ্ছেন।

গত ২৮ জুলাই মাদারীপুর জেলার শিবচর উপজেলার বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ডিজিটাল সার্টিফিকেট ও স্মার্ট কার্ড বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। এসময় জাতীয় সংসদের চীফ হুইপ নুরে-আলম চৌধুরী লিটন উপস্থিত ছিলেন।

মন্ত্রী বলেন, লিটন চৌধুরী তার নির্বাচনী এলাকায় অনেক কিছু করেছেন। তার কাছ থেকে অনেক কিছু শিখে গেলাম। আওয়ামী লীগ সরকার পরপর তিনবার ক্ষমতায় আছে বলেই আমাদের গর্বের পদ্মা সেতু নির্মাণ হয়েছে। স্বাধীনতার পরে বঙ্গবন্ধুর কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাদের সবচেয়ে বড় প্রতিষ্ঠান পদ্মা সেতু নির্মাণ করেছেন। দেশের মানুষ এখন পদ্মাসেতুর সুফল ভোগ করছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আবার প্রধানমন্ত্রী বানাতে হবে। কেউ ভোট নষ্ট করবেন না। নির্বাচনের আগে বিরোধী দল নানা কথা বলবে। মিথ্যা কথা বলবে। আপনারা উন্নয়ন দেখে ভোট দেবেন। শেখ হাসিনাকে সুযোগ দিলে জনগণ আরও উন্নত সুযোগ সুবিধা পাবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। তিনি এই দেশকে রক্ষা করার জন্য কাজ করছেন।


রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ,বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক বলেছেন, আমরা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিলের নির্বাচন চাই। মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রীর কাছে আমরা যাবো। আমরা বীর মুক্তিযোদ্ধারা একুশ বছর মামলা ,হামলার শিকার হয়েছি। বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে আমরা এ দেশ স্বাধীন করেছি। বঙ্গবন্ধুর কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা মুক্তিযোদ্ধাদের রক্ষা করেছেন। তিনি মুক্তিযোদ্ধাদের অনেক সুযোগ-সুবিধা দিয়ে যাচ্ছেন।

গত ২৮ জুলাই মাদারীপুর জেলার শিবচর উপজেলার বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ডিজিটাল সার্টিফিকেট ও স্মার্ট কার্ড বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। এসময় জাতীয় সংসদের চীফ হুইপ নুরে-আলম চৌধুরী লিটন উপস্থিত ছিলেন।

মন্ত্রী বলেন, লিটন চৌধুরী তার নির্বাচনী এলাকায় অনেক কিছু করেছেন। তার কাছ থেকে অনেকে কিছু শিখে গেলাম।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ