২রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার, রাত ১২:১৪

বেড়াতে গিয়ে লাশ হলেন নারায়ণগঞ্জের বাচ্চু মিয়া

সংবাদচর্চা অনলাইনঃ

কক্সবাজারের সেন্টমার্টিনে বেড়াতে গিয়ে লাশ হলেন যুবক বাচ্চু মিয়া। সে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের আব্দুল হামিদের ছেলে।

সোমবার ২২শে ফেব্রুয়ারি দুপুরে সেন্টমার্টিনের একটি হোটেল কক্ষ থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

টেকনাফ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. হাফিজুর রহমান জানান, নীল দিগন্ত রিসোর্ট নামে একটি হোটেল থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে টেকনাফে নিয়ে আসা যাওয়া হয়। পরে ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে হার্ট অ্যাটাকে তার মৃত্যু হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট হাতে পেলে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে।

নীল দিগন্ত রিসোর্টের ব্যবস্থাপক সাইফুল ইসলাম জানান, রোববার ঢাকা বিসিএস কম্পিউটার সিটিতে কর্মরত ৭ জনের একটি টিম সেন্টমার্টিন ভ্রমণে এসে নীল দিগন্ত রিসোর্টের রুমে ওঠেন। হোটেল রিসোর্টে বাচ্চু মিয়ার ঠিকানা লেখা রয়েছে, সেখানে পিতার নাম মৃত আব্দুল হামিদ, গ্রাম রূপগঞ্জ, ডেমরা নারায়ণগঞ্জ, ঢাকা।

সেন্টমার্টিন দ্বীপ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুর আহমদ জানান, মারা যাওয়া পর্যটকের হার্টের সমস্যা ছিল বলে তার সাথে ভ্রমণে আসা সঙ্গীরা জানিয়েছেন। রাতে বুকে ব্যথা করলে স্থানীয় ফার্মেসি থেকে ওষুধ খেয়ে ঘুমিয়ে পড়েছিলেন। সকালে সঙ্গীরা তাকে মৃত অবস্থায় দেখতে পান।

বাচ্চু মিয়ার সাথে থাকা ভ্রমণ দলের সদস্য সজিব মিয়া জানান, সেন্টমার্টিনে পৌঁছার পর থেকে তিনি অসুস্থ বোধ করছিলেন। রাতে ঘুমিয়ে পড়ার পর সকালে তাকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ