১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৯শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার, সকাল ৯:১৯

পাপ্পা গাজীর কায়েতপাড়া জয়

সংবাদচর্চা রিপোর্ট:

শতভাগ অবাধ,সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ ভোটে কায়েতপাড়ায় আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী মো: জাহেদ আলী বেসরকারীভাবে বিজয়ী হয়েছেন । বৃহস্পতিবার ( ১১ নভেম্বর) ভোটগ্রহণ শেষে তাকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়। তার এ বিজয়ের মাধ্যমে কায়েতপাড়া থেকে ভূমিদস্যু আন্ডা রফিকের শাসনের অবসান ঘটল।

এবার জাহেদ আলীকে নৌকা প্রতীকে বিজয়ী করার মহানায়ক রূপগঞ্জে আওয়ামী রাজনীতির ভবিষ্যত কান্ডারি গাজী গোলাম মর্তুজা পাপ্পা । তিনি নৌকাকে বিজয়ী করার লক্ষ্যে কায়েতপাড়ায় মাঠ চষে বেড়ান । প্রতীক বরাদ্দের পর থেকে তিনি দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে ভোটারদের দ্বারে দ্বারে গিয়ে নৌকার পক্ষে ভোট চান। দিনরাত তাকে মাঠে দেখা গেছে। অনেক প্রতিকুলতার মধ্যেও তিনি হালছাড়েননি । ভূমিদস্যুদের গুজবে তিনি কখনো হতাশ হননি। মনোবল শক্ত রেখে তিনি দলীয় নেতা কর্মীদের নিয়ে মাঠে ছিলেন। কায়েতপাড়ায় এবার কিছু নেতা নৌকার বিরোধীতা করেছেন। সেই নৌকা বিরোধীদের সকল ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করেছেন বিসিবির পরিচালক ও মন্ত্রীপুত্র গাজী গোলাম মর্তুজা পাপ্পা। এক কথায় বলা চলে গাজী গোলাম মর্তুজা পাপ্পা কায়েতপাড়া জয় করেছেন। রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা ও দলীয় নেতারা জানান, এবার কায়েতপাড়া ইউপি নির্বাচনে দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে গাজী পরিবার মাঠে ছিলো। বিশেষ করে তরুণ আওয়ামী লীগ নেতা গাজী গোলাম মর্তুজা পাপ্পা, তিনি মাঠে না থাকলে হয়ত নৌকা হেরে যেতো। তিনি দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে নৌকাকে হারতে দেননি। এ জয়ের ফলে কায়েতপাড়া আওয়ামী লীগের ঘাটি তা প্রমাণ হয়েছে। প্রমাণ হয়েছে কায়েতপাড়াবাসী গাজী গোলাম মর্তুজা পাপ্পার সাথে আছে। তিনি আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মান রক্ষা করেছেন।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ