আজ বুধবার, ১৩ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

‘দল এবার ভুল করবে না’

সংবাদচর্চা রিপোর্ট:

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে আড়াইহাজারে খেলা শুরু হয়েছে। দলীয় মনোনয়ন নিয়ে নানা আলোচনা, বিশ্লেষণ শুরু হয়েছে। ১০ টি ইউনিয়ন ও ২টি পৌরসভায় জাতীয় নির্বাচন পরিচালনা কমিটি গঠন শুরু করে দিয়েছেন বিএনপির সাবেক তিনবারের এমপি আতাউর রহমান আঙ্গুর। তার নির্বাচন পরিচালনা কমিটিতে বিএনপির পদধারী, পদ বঞ্চিত ও সাবেক নেতারা রয়েছে। দলীয় সুত্রের খবর একক ভাবে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছেন আঙ্গুর। অতীতে যারা তার নির্বাচন করেছে সেই নেতাকর্মীদের খুঁজে বের করে তাদেরকে সক্রিয় করা হচ্ছে। এর পাশাপাশি নতুন যারা নেতৃত্বে আসছেন তাদের সাথেও তিনি যোগাযোগ রাখছেন। তিনি আড়াইহাজারে কর্মীদের সাথে সময় দিচ্ছেন। দলীয় কর্মসূচি তিনি পালন করছেন।

সম্প্রতি আড়াইহাজার থানা, পৌর বিএনপি ও ছাত্রদলের কমিটি হয়েছে। সেই কমিটিতে আঙ্গুর ও তার কর্মীদের রাখা হয়নি। এছাড়া তার ভাতিজা মাহমুদুর রহমান সুমন থানা বিএনপির আহবায়ক পদ থেকে বাদ পড়েছেন। তাতে আড়াইহাজারের রাজনীতিতে নতুন মেরুকরণ শুরু হয়েছে। দলটির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নজরুল ইসলাম আজাদের সমর্থকরা কমিটিতে বেশি পদ পেয়েছেন। কমিটি নিয়ে আঙ্গুরের সাথে তার ভাতিজার দ্বন্দ্ব হ্রাস পাচ্ছে। আগামী সংসদ নির্বাচনে সুমন তার চাচার পক্ষে মাঠে থাকবে সেই আভাস পাওয়া যাচ্ছে। নজরুল ইসলাম আজাদ ও মাঠে রয়েছে। তার চাচা আবদু জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক। তারা চাচা ভাতিজা এক।

নেতাদের মতে আড়াইহাজারের এমপি হতে ভৌগোলিক দিকটা গুরুপূর্ণ ভূমিকা রাখে। আড়াইহাজার থানার এক প্রান্ত পাচঁরুখী এলাকায় আজাদের বাড়ি। আর থানার মাঝখানে হাইজাদি ইউনিয়নে আঙ্গুরের বাড়ি। এমপি হতে ভৌগোলিক দিক দিয়ে এগিয়ে আঙ্গুর। এক প্রান্তের মানুষ আরেক প্রান্তে ভোট দেবে কিনা সন্দেহ। দলও ভৌগোলিক দিকটা বিবেচনা করবে।

এসব এব্যাপারে আঙ্গুর বলেন, আমার কোনো গ্রুপ নেই । আমি সবাইকে নিয়েই আগামী সংসদ নির্বাচনের প্রস্তুতি নিয়ে রাখছি। আমার দল বিএনপি আমাকে মনোনয়ন দিলে আমি নির্বাচন করবো। দলের শীর্ষ নেতাদের সাথে যোগাযোগ রাখছি। দল এবার আর ভুল করবে না। আমি তিনবারের এমপি। দলীয় মনোনয়ন আমিই পাবো। জনগণ তিনবার আমাকে ভোট দিয়ে উন্নয়ন পেয়েছে। এবার আসনটি আমরা পুনরুদ্ধার করবো।

তিনি বলেন, গত সংসদ নির্বাচনে আমাকে মনোনয়ন দেওয়া হয়নি তারপরও আমি দলের বাইরে যায়নি। আর উনি ( নজরুল ইসলাম আজাদ) কিভাবে মনোনয়ন পেয়েছেন সেটাও জানি। কাকে মনোনয়ন দিলে আড়াইহাজারে ধানের শীর্ষ জয়ী হবে সেটাও দল বুঝে গেছে। রাজনীতিতে তারাহুরা করে বড় হওয়া যায় না। সিরিয়াল অনুযায়ী নেতৃত্ব সৃষ্টি হয়। দুর্যোগে আড়াইহাজারবাসীর পাশে রয়েছি। যারা গ্রুপিং করছে , অন্যের সুনাম নষ্ট করছে তাদের কাছে আমার পরামর্শ থাকবে এগুলো বন্ধ করুন।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ