১২ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৮শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার, সকাল ৬:৪৬

‘দলের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে গেলে কেউই রক্ষা পাবে না’

অনলাইন ডেস্ক:

যারা নৌকার বিরোধিতা করবে তাদের আগামীতে দল ও জনপ্রতিনিধি হিসেবে দলীয় মনোনয়ন দেওয়া হবে না বলে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছেন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। জাতীয় ও স্থানীয় সরকার নির্বাচনগুলোতে দলের মনোনীত প্রার্থীকে বিজয়ী করতে সর্বস্তরের নেতা-কর্মীদের ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার নির্দেশ দিয়ে তিনি বলেছেন, দলের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে গেলে কেউই রক্ষা পাবে না। দলের সিদ্ধান্ত অমান্যকারীরা ভবিষ্যতে দলের কোথাও মনোনয়ন পাবেন না। গতকাল বিকালে গণভবনে আওয়ামী লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের মুলতবি সভার দ্বিতীয় দিনে মনোনয়ন প্রসঙ্গে অনির্ধারিত আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন। বৈঠক সূত্র জানায়, বিকাল ৪টায় বৈঠক শুরু হয়ে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত (রাত ৯টা) চলছিল। বৈঠকে উপস্থিত দুজন সদস্য দলীয় প্রধানের এমন হুঁশিয়ারির কথা নিশ্চিত করেছেন। সূত্র জানায়, বৈঠকে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা বলেন, আওয়ামী লীগ বড় ও জনপ্রিয় একটি রাজনৈতিক দল। এ দলে ইউনিয়ন পর্যায়ে অনেক যোগ্য প্রার্থী রয়েছেন। কিন্তু একজনকে মনোনয়ন দেওয়া হবে। পর্যায়ক্রমে সবাইকে নানাভাবে মূল্যায়ন করতে হবে। এখন থেকে যারা নৌকার বিরোধিতা করবে তাদের আর দল ও পরবর্তীতে যে কোনো জনপ্রতিনিধি হিসেবে মনোনয়ন দেওয়া হবে না। তিনি বলেন, দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে অতীতে ভোটে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী নেতা যতই জনপ্রিয় হোক না কেন, তাদের আর নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন দেওয়া হবে না। দলের মধ্যে শৃঙ্খলা প্রতিষ্ঠায় এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে আওয়ামী লীগ।

আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে এ সময় মনোনয়ন বোর্ডের সদস্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আমির হোসেন আমু, শেখ আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ, ওবায়দুল কাদের, শেখ ফজলুল করিম সেলিম, কাজী জাফর উল্লাহ, ড. মো. আবদুর রাজ্জাক, লে. কর্নেল (অব.) ফারুক খান, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আবদুর রহমান, রশিদুল আলম প্রমুখ।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ