আজ রবিবার, ১২ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৭শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

তাদের টার্গেটে ছিলো আ.লীগ কর্মীরা : মন্ত্রী গাজী

সংবাদচর্চা রিপোর্ট:

রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি , বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীর প্রতীক বলেছেন, আমার নির্বাচনী এলাকায়ও নির্বাচন হয়েছে। অনেক কঠিন নির্বাচন হয়েছে। সেখানে আমাদের ডিসি সাহেবের ভূমিকা খুবই প্রশংসনীয়, তিনি যেভাবে শক্ত হাতে সেটা নিয়ন্ত্রণ করেছেন আমি তার প্রশংসা করি। সেই সঙ্গে পুলিশ প্রশাসন, র‌্যাব এবং বিজিবি যারা ছিলো তারাও শক্ত হাতে সেটা নিয়ন্ত্রণ করেছে বিধায় সেটা শান্তিপূর্ণ নির্বাচন হয়েছে।

মন্ত্রী বলেন, আওয়ামীলীগ কর্মীদের উপর তাদের টার্গেট ছিলো। এখনো আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা স্বাধীনতা বিরোধী ও সন্ত্রাসীদের টার্গেটে আছে। তাদের উপর হামলা এবং হুমকি দেওয়া হচ্ছে। প্রশাসনকে বলবো আপনারা প্রত্যেকটা এলাকায় নজর রাখবেন এবং সতর্ক থাকবেন ।

শনিবার (১৪ নভেম্বর) দুপুরে নারায়ণগঞ্জ রাইস সাইলো এবং প্রিমিক্স কার্নেল ফ্যাক্টরি নির্মাণ কাজ এর ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।
এসময় খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার, শামীম ওসমান এমপি, নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

গোলাম দস্তগীর গাজী বলেন, বাংলাদেশ খুব আরামে আসেনি, রক্ত দিয়ে কিনতে হয়েছে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে আমরা যুদ্ধ করে বাংলাদেশকে স্বাধীন করেছি। আমরা বাঙালিরা জাতির পিতাকে হত্যা করেছি। এর চেয়ে দুঃখ কি আছে আর। তার কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনাকে বহুবার হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে, কিন্তু পারেনি ষড়যন্ত্রকারীরা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজ খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জন করেছে।

প্রধানমন্ত্রীকে নারায়ণগঞ্জবাসীর পক্ষ থেকে ধন্যবাদ জানিয়ে গোলাম দস্তগীর গাজী বলেন, শামীম ভাই যেভাবে আবেগের সুরে বলে গেলেন , অত আবেগে আমি বলতে পারি না। তিনি ছোট বেলায় ছাত্র রাজনীতি করে যে আবেগ শিখেছেন ,আমরা তা শিখতে পারিনি। আমরা তখন দেশকে পুনগঠন করার জন্য কাজ করেছি। জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করার জন্য সংগঠনকে শক্তিশালী করা হচ্ছে । যার যার জায়গা থেকে যার যতটুকু করার আছে প্রধানমন্ত্রীর হাতকে শক্তিশালী করার জন্য করতে হবে। আপা , আপা বললে চলবে না, আমার কি করার আছে সেটাই করতে হবে।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ