আজ রবিবার, ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

‘গুরুজনকে অসম্মান করে বড় হওয়া যায় না’

সংবাদচর্চা রিপোর্ট:

রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ,বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক বলেছেন, কাজীপাড়ার স্কুলের ইতিহাস অনেক করুন ইতিহাস। এই স্কুল ভাঙা চুড়া ছিলো। স্কুলের মতো পরিবেশ ছিলো না। কোন রাস্তা ছিলো না। স্কুলে আসা যেতো না। জমি নিয়েও সমস্যা ছিলো। আমি নতুন ভবন দিয়েছি। কাজীপাড়া টু নোয়াপাড়া একটা সুন্দর রাস্তা হয়েছে। খেলার মাঠ হয়েছে।

বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী আরও বলেন, সরকার শিক্ষকদের বেতন বৃদ্ধি করেছে। শিক্ষক দিবসে আমি সকল শিক্ষকদের সম্মান জানাই। তারাই আমাদের শ্রেষ্ঠ সন্তান। সবাই শিক্ষকদের কথা মানবে। গুরুজনকে অসম্মান করলে বড় হওয়া যায় না। নেতা হতে গেলেও ভালো ছাত্র হতে হয়। শিক্ষকদের ভালোবাসায় অনেকে ভালো নেতা হতে পারে। হাত ধোলে আমরা করোনা থেকে মুক্তি পাবো।

বৃহস্পতিবার ২৭ অক্টোবর শিক্ষক দিবস উদযাপন উপলক্ষে মুড়াপাড়া ও কাজীপাড়ায় পৃথক অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। এছাড়া শোভাযাত্রা বের করা হয়েছে। প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে রূপগঞ্জ উপজেলা শিক্ষা অফিসের উদ্যোগে সরকারি মুড়াপাড়া কলেজ মাঠে আয়োজিত এ আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার রফিক উদ্দিন আহম্মেদ। সভায় বক্তব্য রাখেন রূপগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) কামরুল হাসান মারুফ, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. আব্দুল আউয়াল মোল্লা, সাধারণ সম্পাদক নারায়ণ চন্দ্র সাহা, রূপগঞ্জ উপজেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক হাজী আলী ওসমান, সরকারী মুড়াপাড়া কলেজের অধ্যক্ষ হাফিজুর রহমান, সলিম উদ্দিন চৌধুরী কলেজের অধ্যক্ষ জাহাঙ্গীর মালুম, জনতা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোক্তার হোসেন, সাত্তার জুট মিলস হাই স্কুৃলের প্রধান শিক্ষক আবুল কালাম আজাদ, জাঙ্গীর উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক ফরিদ মোল্লা, মুড়াপাড়া সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শাহ আলম, আশরাফ জুট মিলস হাই স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক শামীম হোসেন প্রমুখ। পরে শোভাযাত্রা নিয়ে স্থানীয় প্রধান সড়ক তারা প্রদক্ষিণ করে।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ