আজ বুধবার, ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩০শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

উত্তর প্রদেশে বিজেপিকে সরানোর ডাক

নিজস্ব প্রতিবেদক:

সমাজবাদী পার্টির সুপ্রিমো অখিলেশ যাদবকে পাশে নিয়ে মঙ্গলবার বিজেপি বিরোধিতায় সরব হলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সরাসরি যোগী আদিত্যনাথকে একের পর এক বাক্যবাণে বিদ্ধ করলেন তিনি। গঙ্গায় কোভিডে মৃতদের দেহ ভাসানো থেকে শুরু করে উন্নাও সংঘবদ্ধ ধর্ষণসহ সব বিষয় উল্লেখ করে আক্রমণাত্মক হয়ে ওঠেন মমতা। আর তাতেই বুঝিয়ে দিলেন, উত্তর প্রদেশের মাটিতে নির্বাচনি লড়াইয়ে অখিলেশের হাত কতটা শক্ত করে ধরতে তৎপর তৃণমূল।

পূর্বনির্ধারিত সূচি অনুযায়ী লখনউয়ে যৌথ ভার্চুয়াল প্রচার শুরু করেন অখিলেশ যাদব-মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। অখিলেশের সমর্থনে এত তৎপর হওয়ায় তৃণমূল সুপ্রিমোকে ধন্যবাদ জানান সমাজবাদী পার্টির নেতা। এরপর নিজে অল্প সময় বক্তব্য শেষ করে মাইক্রোফোন এগিয়ে দেন মমতার দিকে। মমতা তার বক্তব্যের শুরু থেকেই বিজেপি বিরোধিতায় চড়া সুর তোলেন। যোগীর উদ্দেশে কার্যত হুঁশিয়ারির সুরে বলেন, ‘আগে ক্ষমা চান, তারপর ভোট চাইবেন’।
এ প্রসঙ্গে মমতার আরও আক্রমণ, ‘পশ্চিমবঙ্গ থেকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে সরাবেন বলে তো গিয়েছিলেন প্রচারে। কিন্তু সেখানে আপনাদের ফল কী হলো, দেখলেন তো। এবার বিজেপিকে উত্তর প্রদেশের মাটি থেকে উৎখাত করার জন্য অখিলেশ যে লড়াই চালাচ্ছেন, তাতে ওর হয়ে আমিও এতে শামিল।’
মমতা বলেন, ‘অখিলেশের লড়াইয়ে বিজেপিবিরোধী সবাই শামিল হোক। আমি চাই, সপা জিতুক, বিজেপি হারুক। বিজেপিকে হঠাতে অখিলেশের লডাইয়ে শামিল হয়ে আমি আজ এখানে এসেছি। আবার ৩ তারিখ বারানসি যাব। সেখানেও প্রচার করব। আমার বিশ্বাস, এখানে অখিলেশরাই জিতবে, বিজেপি হারবে। আপনারা সবাই অখিলেশকে সমর্থন করুন। ওদের জিততে সাহায্য করুন। এবারও যদি যোগী সরকার ফেরে, তাহলে আমজনতার দুর্দশার শেষ থাকবে না।’

২০২১ সালের বিধানসভা নির্বাচনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ডাকে সাড়া দিয়ে সমাজবাদী পার্টির নেত্রী জয়া বচ্চনকে কলকাতায় প্রচারে পাঠিয়েছিলেন অখিলেশ। জয়া কলকাতায় রোড শো করেন তৃণমূল প্রার্থীদের নিয়ে। সাংবাদিক বৈঠক থেকে বারবার তৃণমূল সরকারকে ফের ক্ষমতায় আনার বার্তা দেন। সেসব কথা স্মরণ করে অখিলেশকে ধন্যবাদ জানান মমতা। এরপরই তার বার্তা, শুধু বাংলা বা উত্তর প্রদেশেই নয়, বিজেপিকে সরানোর ডাক উঠুক গোটা দেশ থেকেই।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ