সোনারগাঁয়ে অপচিকিৎসায় অপারেশন গৃহবধূর মৃত্যু

41

সোনারগাঁও প্রতিনিধি:
সোনারগাঁয়ে পিত্তথলিতে পাথর অপারেশন করতে গিয়ে অদক্ষ ডাক্তারের অপচিকিৎসায় এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। নিহত গৃহবধূর মালেকা বেগম(৩০)।

১৭ অক্টোবর (বৃহস্পতিবার) সন্ধ্যায় মোগরাপাড়া চৌরাস্তা এলাকায় অবস্থিত রহমত ম্যানসনে পুরান সেবা জেনারেল হাসপাতালে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় নিহত গৃহবধূও আত্মীয়-স্বজরা হাসপাতাল ভাংচুর করে।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আনেন। নিহত মালেকা বেগম মোগরাপাড়া দমদমা গ্রামের রুহুল আমিন মিয়ার স্ত্রী। নিহত গৃহবধূর দেবর মো. সজীব ইসলাম জানান, পুরান সেবা জেনারেল হাসপাতালে পরীক্ষা নিরিক্ষা করে ডাকার জানিয়েছেন মালেকা বেগমের পিত্তথলিতে পাথর হয়েছে। পাথর বাহির করতে তাকে দ্রুত অপারেশন করার জন্য সিন্ধান্ত নেয় চিকিৎসক। সেবা জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসক ডাঃ কে এম রিয়াজ মোর্শেদের মাধ্যমে অপারেশন করানোর জন্য হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বৃহস্পতিবার দুপুরে কর্তব্যরত ডাক্তার কে এম রিয়াজ মোর্শেদ মালেকা বেগমের পিত্তথলিতে পাথর বাহির করতে অপারেশন করেন। সন্ধ্যা ৭টার দিকে রোগী মালেকা বেগমের শাররীক অবস্থা অবনতি দেখা দেয়।

এসময় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের দায়িত্ব অবহেলায় অবশেষে মালেকা বেগম মারা যায়। এখবর পেয়ে নিহত গৃহবধূর আত্মীয়-স্বজন ও স্থানীয় লোকজন উত্তেজিত হাসপাতাল ভাংচুর করে। এ খবর পেয়ে সোনারগাঁ থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আনেন। হাসপাতালে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। অভিযুক্ত ডাক্তার কে এম রিয়াজ মোর্শেদ তিনি সোনারগাঁ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে জুনিয়র কনসালট্যান্ট (সার্জারী), জেনারেল ও ল্যাপারস্কপিক সার্জন, এমবিবিএস(ডি এম সি)এফ সি পি এস সার্জারী। তিনি প্রতি সপ্তাহে ৩ দিন রবি,মঙ্গল ও বৃহস্পতিবার সেবা জেনারেল হাসপাতালে অপারেশ করেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে তিনি পিত্তথলিতে পাথর বাহির করতে গিয়ে অপারেশনের ৩-৪ ঘন্টার পর মালেকা বেগম মারা যায়।

For Advertisement: 01921400867/ 01981617415

সংবাদচর্চায় প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, ছবি, ভিডিও, তথ্য কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।