২০শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৫ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার, দুপুর ১২:৩২

শ্রমিকদের উপর পুলিশী নির্যাতনের প্রতিবাদে সিপিবি’র সমাবেশ

সংবাদচর্চা অনলাইনঃ

বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র সিদ্ধিরগঞ্জ থানা কমিটির সাধারণ সম্পাদক শ্রমিক নেতা দিলীপ কুমার দাস এবং কুনতং অ্যাপারেলস শ্রমিকদের উপর পুলিশী নির্যাতনের প্রতিবাদ ও বিচারের দাবিতে সমাবেশ করেছে সিপিবি।



শুক্রবার ১৫ই জানুয়ারি বিকেল ৪ টায় সিদ্ধিরগঞ্জের ২ নং ঢাকের শ্বরী এলাকায় এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সিপিবি’র সিদ্ধিরগঞ্জ থানা কমিটির সভাপতি আব্দুল মালেকের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন সিপিবি’র কেন্দ্রিয় কমিটির নেতা ও গার্মেন্ট শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্রের কেন্দ্রিয় কমিটির সভাপতি এড. মন্টু ঘোষ, সিপিবি’র জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক শিবনাথ চক্রবর্তী, সম্পাদক মন্ডলির নেতা বিমল কান্তি দাস, জেলা কমিটির নেতা দুলাল সাহা, গার্মেন্ট শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্রের নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটির সভাপতি এম এ শাহীন, সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন, সিপিবি’র সিদ্ধিরগঞ্জ থানা কমিটির সাধারণ সম্পাদক দিলীপ কুমার দাস ও শ্রমিক জাগরণ মঞ্চের নেতা জাহাঙ্গীর আলম গোলক প্রমুখ।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, আদমজী ইপিজেডের কুনতং অ্যাপারেলস লিঃ কারখানার শ্রমিকরা তাদের বকেয়া পাওনা  ও লে-অফ প্রত্যাহারের দাবিতে গত শনিবার (৯ জানুয়ারি) সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত ইপিজেডের মূল ফটকের সামনে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করে।

শ্রমিকদের ন্যায়সঙ্গত আন্দোলনে সিপিবি’র সিদ্ধিরগঞ্জ থানা কমিটির সাধারণ সম্পাদক শ্রমিক নেতা দিলীপ কুমার দাস সংহতি জানিয়ে উপস্থিত ছিলেন। এসময় শ্রমিকদের শান্তিপূর্ণ আন্দোলনে বেপজা কর্তৃপক্ষের নির্দেশে পুলিশ নির্বিচারে লাঠিপেটা করে টিয়ারশেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে শ্রমিক নেতা দিলীপ কুমার দাস সহ অর্ধশতাধিক শ্রমিককে গুরুতরভাবে আহত করেছে।

পুলিশের এই অমানবিক বর্বর নির্যাতনের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে নেতৃবৃন্দ আরো বলেন- কুনতং অ্যাপারেলস শ্রমিকদের শান্তিপূর্ণ আন্দোলনে যে পুলিশ ও বেপজার আনসার সদস্যরা নির্বিচারে শ্রমিক ও নেতৃবৃন্দের উপর অমানবিক নির্যাতন চালিয়েছে তাদেরকে তদন্তের মাধ্যমে খোঁজে বের করে উপযুক্ত বিচার করতে হবে। নতুবা শ্রমিক ও নেতৃবৃন্দের উপর পুলিশী নির্যাতনের বিরুদ্ধে তীব্র আন্দোলন গড়ে তুলে দাঁত ভাঙ্গা জবাব দেয়া হবে।

বক্তারা অবিলম্বে আলোচনার মাধ্যমে কুনতং অ্যাপারেলস শ্রমিকদের সংকট নিরসনের জন্য বেপজা কর্তৃপক্ষ ও সরকারের প্রতি উদার্থ আহ্বান জানান।

স্পন্সরেড আর্টিকেলঃ